খবর

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে সিলিকন ভ্যালির সম্মাননা

7 August, 2021
Source: The Daily Ittefaq

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীতে তাঁর সামাজিক, অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক রূপান্তরে অসামান্য অবদানের জন্য শ্রদ্ধা জানিয়েছেন বিশ্বব্যাপী প্রযুক্তি এবং উদ্ভাবনের শীর্ষস্থান সিলিকন ভ্যালি।


সম্প্রতি আমেরিকার সিলিকন ভ্যালিতে আয়োজিত "ইউএস-বাংলাদেশ টেক ইনভেস্টমেন্ট সামিট" -এ বাংলাদেশের জাতির পিতাকে সম্মান জানিয়ে বঙ্গবন্ধুকন্যা ও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এর জন্য একটি সম্মাননা স্মারক উপহার দেন সিলিকন ভ্যালির পক্ষ থেকে সান্তা ক্লারা অঞ্চলের মেয়র লিসা এম গিলমোর।


এসময় সান্তা ক্লারা অঞ্চলের মেয়র লিসা এম গিলমোর বলেন, আমি সিলিকন ভ্যালির কোম্পানিগুলোকে বাংলাদেশের মতো উদীয়মান দেশগুলোতে ব্যবসায় সম্প্রসারণের সম্ভাবনা খুঁজতে উৎসাহিত করতে কাজ করতে চাই। অন্তর্ভুক্তিমূলক উন্নয়ন ত্বরান্বিত করার ক্ষেত্রে দেশটি উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি অর্জন করেছে যা আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের নীতি এবং পরিচালনাকারীদের জন্য একটি অনন্য উদাহরণ যা সারা বিশ্বের উন্নয়নশীল দেশগুলি অনুসরণ করতে পারে।


অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান বলেন, বাংলাদেশ আইসিটি খাতকে সহজতর করেছে এবং সরকারি ও বেসরকারি খাতের সহায়তায় বৃদ্ধি পাচ্ছে। এখন সময় এসেছে সবার বাংলাদেশে এসে বিনিয়োগ করার। এটি একটি নতুন বাংলাদেশ এবং আমরা সবাই এগিয়ে যাওয়ার জন্য বদ্ধ পরিকর।


ভেঞ্চার ক্যাপিটাল অ্যান্ড প্রাইভেট ইক্যুইটি অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ভিসিপিয়াব) ও টাই গ্লোবাল এর সাথে পার্টনারশীপে বাংলাদেশের পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) কর্তৃক প্রযুক্তি বিনিয়োগ এর এই শীর্ষ সম্মেলন যুক্তরাষ্ট্রে সপ্তাহব্যাপী রোডশো এর চূড়ান্ত পর্ব হিসাবে আয়োজন ছিল এই ইউএস-বাংলাদেশ টেক ইনভেস্টমেন্ট সামিট।


বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান প্রফেসর শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম বলেন, “গত ১০ বছরে বাংলাদেশের মানুষের অর্থনৈতিক সক্ষমতা উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে এবং এখানে একটি বিশাল বাজার রয়েছে। তিনি আরও বলেন, বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী অর্থনীতি হওয়ায় যুক্তরাষ্ট্রকে অন্যান্য দেশে বিশাল রপ্তানি শুল্ক দিতে হচ্ছে। কিন্তু বাংলাদেশের সঙ্গে একটি যৌথ উদ্যোগ আন্তর্জাতিক বাজারে কম কর দিয়ে কাজ করতে পারে কারণ বাংলাদেশ অনেক দেশের সঙ্গে করমুক্ত রপ্তানি সুবিধা ভোগ করে।


সম্মেলনে বিএসইসির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলামের নেতৃত্বে বাংলাদেশী প্রতিনিধিরা, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়, নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষের প্রতিনিধি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান; অর্থ বিভাগের সিনিয়র সচিব আব্দুর রউফ তালুকদার,; বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব তপন কান্তি ঘোষ; অর্থনৈতিক সম্পদ বিভাগের সচিব ফাতেমা ইয়াসমিন, বিডা এর নির্বাহী চেয়ারম্যান মোঃ সিরাজুল ইসলাম এবং বেপজা এর নির্বাহী চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মোঃ নজরুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন । পেগাসাস টেক ভেঞ্চার্স এর প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী আনিস উজ্জামান, স্টার্টআপ বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক টিনা জেবিন এবং এ্যাঙ্করলেস বাংলাদেশ এর প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও রাহাত আহমেদ সম্মেলনে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।


সম্মেলনে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও বাংলাদেশের বিশিষ্ট বক্তা, প্রবাসী বাংলাদেশী, বিনিয়োগকারী এবং শীর্ষ পর্যায়ের নির্বাহীরা সম্মেলনে অংশ নেন এবং উদীয়মান বাজারের সম্ভাবনাসমূহ, প্রযুক্তি বিনিয়োগকারী ও প্রযুক্তি উদ্যোক্তাদের মধ্যে সহযোগিতার সুযোগ, বাংলাদেশের বিপুল সম্ভাবনাময় বাজার এবং এখানে বিদেশি বিনিয়োগকে আকৃষ্ট করতে সরকারের প্রণোদনাসমূহ নিয়ে আলোকপাত করেন।


ভেঞ্চার ক্যাপিটাল অ্যান্ড প্রাইভেট ইক্যুইটি অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ভিসিপিয়াব) এর সভাপতি শামীম আহসানের সঞ্চালনায় সামিটের এই আলোচনায় অংশগ্রহন করেন ইনভেন্টাস ক্যাপিটাল পার্টনার্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কানওয়াল রেখি, টাই সিলিকন ভ্যালির সভাপতি এজি কারুনাকারান, মন্টা ভিস্তা ক্যাপিটালের জেনারেল পার্টনার ভেঙ্কটেশ শুক্লা, পেগাসাস টেক ভেঞ্চারসের পার্টনার বিল রাইকার্ট, বেসিসের সাবেক সভাপতি ও টেকনোহেভেন কোম্পানি লিমিটেডের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী হাবিবুল্লাহ এন করিম, সিলিকন ভ্যালি সেন্ট্রাল চেম্বার এন্ড কমার্সের প্রেসিডেন্ট ক্রিশ্চিয়ান ডি মালেসিক এবং টাই গ্লোবালের নির্বাহী পরিচালক বিজয় মেনন বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।


নগদের সৌজন্যে আয়োজনটির সহযোগীতায় ছিলো ইস্টার্ন ব্যাংক লিমিটেড, ওয়ালটন এবং বাংলাদেশে আমেরিকান চেম্বার অব কমার্স।